1. alomgirmondol261@gmail.com : দৈনিক আজকের খোলা কাগজ :
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ০৫:৫২ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
পত্নীতলায় উপজেলা পরিষদের মাসিক সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত কেন্দুয়ায় মুক্তিযুদ্ধের শ্লোগানকে বিকৃত করার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ কুড়িগ্রামে কমছে বন্যার পানি,দেখা দিয়েছে পানিবাহিত রোগ ,নেই স্যানিটেশন ব্যবস্থা  নিয়ামতপুরে সাংবাদিককে প্রাণনাশের হুমকি, থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের ৭৩০ কোটি টাকা ব্যয়, তবু ডুবল ঢাকা নওগাঁর নিয়ামতপুরে র‍্যাবের অভিযানে পিস্তল ম্যাগাজিনসহ আটক-১ হাটহাজারীতে সড়ক দুর্ঘটনায় স্বামীর মৃত্যু, হাসপাতালে স্ত্রী নিয়ামতপুরে ব্র্যাকের উদ্যোগে উপজেলা বাল্য বিয়ে নিরোধ কমিটির সমন্বয় সভা নিয়ামতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় হাসপাতালে রোগীদের জন্য নিরাপদ খাবার নিশ্চিত করতে হবে—-খাদ্যমন্ত্রী মুধইলে ভাংড়ি দোকানের ময়লা আবর্জনা”প্রতিনিয়ত প্রাণঘাতীর কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে

ঈদ হোক দেশ-জাতীর কল্যাণে” আত্মশুদ্ধি, সংযম, সৌহার্দ্য ও ভালাবাসার বন্ধনে

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২৩
  • ৩২৮ বার পড়া হয়েছে

অনাবিল শান্তি ও অবারিত আনন্দের বার্তা নিয়ে ঈদের এক ফালি চাঁদ পশ্চিম দিগন্তে ভেসে ওঠে, তখন সর্বশ্রেণির মানুষের হৃদয়-গহিনে বয়ে যায় আনন্দ-উচ্ছ্বাসের মৃদু দোলা। ঈদ বান্দার জন্য আল্লাহর পক্ষ থেকে একটি বড় নেয়ামত।
ঈদ’ শব্দের আরবি শব্দমূল ‘আউদ’। ঈদ অর্থ যা ফিরে ফিরে আসে।
ফিতর’ শব্দের অর্থ ভেঙে দেওয়া বা ইফতার (নাস্তা) করা। ঈদুল ফিতর মানে সে আনন্দঘন উৎসব; যা দীর্ঘ এক মাস সিয়াম সাধনার পর আসে।
আসে সুশৃঙ্খল আচার-আচরণের তীর ঘেঁষে। নৈতিক, আত্মিক ও সামাজিক পরিশুদ্ধির সীমানা পেরিয়ে সামষ্টিক কল্যাণ নিয়ে ঈদ আসে।
অনেকেই ঈদের আনন্দটা ভাগাভাগি করে নিচ্ছেন প্রিয়জনকে বাহারি উপহার দেয়া এবং নেয়ার মাধ্যমে। কিন্তু আমাদেরই সমাজে কিছু হতভাগা মানুষ আছে যাদের ছুঁতে পারে না কোন উৎসব, এমনকি ঈদও।
উচ্চবিত্ত ও মধ্যবিত্তের ঈদ উৎসব উদযাপনে নানা আয়োজনের মধ্যে রয়েছে মুখরোচক খাবার, রঙ্গীন বাহারি রঙ-বেরঙের পোশাক। কিন্তু দরিদ্র মানুষগুলো সেখানে আনন্দ খুঁজে নিচ্ছে অলস ঘুমের মাঝে দিনটি কাটিয়ে দিয়ে। এই দিনে যাদের সামর্থ্য আছে কেবল তারাই আনন্দ করবে তা নয়। আমাদের মাঝে অনেকেই আছেন যারা, উপহার পাওয়ার সম্ভাবনাময় জায়গায় বেশি করে উপহার দেয়। কিন্তু ভুলে যান নিজের কাছের অসচ্ছল মানুষ গুলোর কথা। ধর্মীয় এ উৎসবে ভুলে যায় ধর্মের আদর্শ ও নীতির কথা।
চলুন আমরা ঈদের আনন্দকে ভাগাভাগি করে নেই সকল শ্রেণিভেদ ভুলে। আর সেই কাজের শুরুটা হোক আমাদের হাত ধরেই। আমাদের চারপাশে অসংখ্য অসহায় দরিদ্র মানুষ ও পথশিশু আছে যাদের কাছে ঈদের
দিনে একটা নতুন পোশাক পাওয়া মানে, আকাশের চাঁদ হাতে পাওয়া। আসলে ওদের নতুন পোশাক কেনার সামর্থ্য থাকে না। আমরা কি পারিনা নতুন পোশাক কিনে একটা পথশিশুর মুখে হাঁসি ফুটাতে? এই ঈদে একজন পথ শিশু কে একটা নতুন পোশাক কিনে দিয়ে দেখুন-না কি তৃপ্তি!
সমাজে অসহায় অবহেলিত মানুষের মুখে হাসি ফুটাতে না পারলে ঈদের আনন্দ ম্লান হয়ে যায়। এক মাস সিয়াম সাধনার পর ঈদুল ফিতর মুসলিম উম্মাহর সর্বোত্তম আনন্দের দিন। তাই আত্মশুদ্ধির মাস রমযান থেকে শিক্ষা গ্রহণ করে অসহায় মানুষের সাথে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করা সকলের নৈতিক দায়িত্ব। তাহলে ইহকালীন সফলতার পাশাপাশি পরকালীন মুক্তি সম্ভব ইনশাআল্লাহ। তাই আসুন ঈদ হোক দেশ-জাতীর কল্যাণের এবং আত্মশুদ্ধি, সংযম, সৌহার্দ্য ও ভালাবাসার বন্ধনে এই শুভ প্রত্যাশায় সকলকে ঈদের মোবারকবাদ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

পুরাতন সংবাদ পড়ুন

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট